বিআইজিএফ একটি মাল্টিস্টেকহোল্ডার প্ল্যাটফরম যা ইন্টারনেট গভর্নেন্স নিয়ে কাজ করে

বিআইজিএফ একটি মাল্টিস্টেকহোল্ডার প্ল্যাটফরম যা ইন্টারনেট গভর্নেন্স নিয়ে কাজ করে

বাংলাদেশ ইন্টারনেট গভর্নেন্স ফোরাম (বিআইজিএফ) জাতিসংঘের ইন্টারনেট গভর্নেন্স ফোরামের (ইউএনআইজিএফ) লক্ষ্য ও উদ্দেশ্যকে বাস্তবায়নের লক্ষ্যে কাজ করছে। বিআইজিএফ একটি মাল্টিস্টেকহোল্ডার প্ল্যাটফরম যা ইন্টারনেট গভর্নেন্স নিয়ে কাজ করে।
ইন্টারনেট গভর্নেন্স ফোরাম ২০২১ পোল্যান্ডের কাটোভিসে ইন্টারন্যাশনাল কংগ্রেস সেন্টারে শুরু হয়েছে। ৬ ডিসেম্বর থেকে শুরু হয়ে চলবে ১০ ডিসেম্বর পর্যন্ত । বাংলাদেশ ইন্টারনেট গভর্নেন্স ফোরাম জাতিসংঘের উন্নয়ন কর্মসূচি (ইউএনডিপি)-এর সহযোগিতায় ঢাকায় একটি বাংলাদেশ রিমোট হাবের আয়োজন করেছে। বাংলাদেশ রিমোট হাব এ সারা দেশের ১৫০ জনের মতো অংশগ্রহণকারী এই ব্যতিক্রমী ও আকর্ষণীয় আলোচনাগুলোতে অংশগ্রহণ করছে। এই রিমোট হাব বিশেষ করে তরুণ এবং অন্যান্য পেশাজীবীদের জন্য সক্ষমতা বৃদ্ধির জন্য কাজ করছে।
জনাব মোহাম্মদ আবদুল হক অনু, সেক্রেটারি-জেনারেল, বাংলাদেশ ইন্টারনেট গভর্নেন্স ফোরাম অংশগ্রহণকারীদের স্বাগত জানান এবং বিআইজিএফের প্রেক্ষাপট তুলে ধরেন এবং বিগত বছরগুলিতে বিআইজিএফ-এর কিছু কার্যক্রম সম্পর্কে ধারণা প্রদান করেন। বিআইজিএফ বহুমাত্রিক অংশীজনদের বিশেষ করে যুবকদের একত্রিত করে ইন্টারনেট গভর্নেন্স ইস্যুতে, ডিজিটাল বিভাজন এবং বৈষম্য, গ্রামীণ যুবকদের ইন্টারনেটের আওতায় নিয়ে আসার জন্য সরকার, বেসরকারী খাত বা নাগরিক সমাজের প্রতিনিধিদের কারিগরি দক্ষতা বৃদ্ধিতে কাজ করার জন্য উৎসাহ প্রদান করে। তাছাড়া একটি অন্তর্ভুক্তিমূলক টেকসই ইন্টারনেট ব্যবস্থার জন্য কাজ করছে।
বাংলাদেশ এনজিওস নেটওয়ার্ক ফর রেডিও এন্ড কমিউনিকেশনের (বিএনএনআরসি) প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এএইচএম বজলুর রহমান তার স্বাগত বক্তব্যে উল্লেখ করেন যে বিআইজিএফ জ্ঞান সৃষ্টি, জ্ঞান সংরক্ষণ, জ্ঞান প্রচারের জন্য সরকার ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ে কার্যক্রম ত্বরান্বিত করতে সরকারের সাথে কাজ করে যাচ্ছে। বিআইজিএফ ইয়ুুথ ইন্টারনেট গভর্নেন্স ফোরাম, স্কুল অফ ইন্টারনেট গভর্নেন্সের আয়োজন করে আসছে এবং এই বছর উইমেন ইন্টারনেট গভর্নেন্স ফোরাম, চিলড্রেন ইন্টারনেট গভর্নেন্স ফোরামের আয়োজন করা হবে যাতে নীতি-নির্ধারকদের প্রভাবিত করে ডিজিটাল বিভাজন হ্রাস করতে পারে।
এডভোকেট খন্দকার হাসান শাহরিয়ার, ডিজিটাল সিকিউরিটি অ্যাক্ট এবং সোশ্যাল মিডিয়া সম্পর্কে আলোচনা করেন। আইসিটি বিষয়ে বক্তব্য রাখেন সিটি ইউনিভার্সিটির কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রধান মোঃ সাফায়েত হোসেন।

Share This Post