এসডিজির লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে স্যানিটেশন খাতে অর্থায়নের সহজলভ্যতা বাড়াতে হবে

এসডিজির লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে স্যানিটেশন খাতে অর্থায়নের সহজলভ্যতা বাড়াতে হবে


বাংলাদেশে প্রাইভেট সেক্টরে পানি ও স্যানিটেশন খাতে অর্থায়নের সহজলভ্যতা বাড়ানোর চ্যালেঞ্জ ও সুযোগ বিষয়ে অনুষ্ঠিত এক গোলটেবিল আলোচনায় আলোচকবৃন্দ বলেছেন, আর্থিক প্রতিষ্ঠানসমূহ যদি পানি ও স্যানিটেশন খাতে প্রাইভেট সেক্টরে অর্থায়ন না বাড়ায় তাহলে এসডিজির পানি ও স্যানিটেশন বিষয়ক লক্ষ্যমাত্রার অর্জন ব্যাপকভাবে ব্যাহত হবে। গতকাল (১৪ সেপ্টেম্বর) রাজধানীর ডেইলি স্টার সেন্টারের আজিমুর রহমান কনফারেন্স হলে অনুষ্ঠিত এ বৈঠকে আলোচকবৃন্দ এ কথা বলেন।

নেদারল্যান্ড সরকারের পররাষ্ট্র মন্ত্রনালয়ের আর্থিক সহায়তায় বাংলাদেশ সহ ছয়টি দেশে বাস্তবায়নাধিন ফিনান্সিয়াল ইনক্লুশান ইমপ্রুভস স্যানিটেশন এন্ড হেলথ (ফিনিস মন্ডিয়াল) প্রোগ্রাম ও ঢাকাস্থ নেদারল্যান্ড দূতাবাসের যৌথ উদ্যোগে আয়োজিত এ গোলটেবিল বৈঠকে অন্যান্যের মধ্যে বাংলাদেশ ব্যাংক এর সাসটেইনেবল ফিনান্স ডিপার্টমেন্টের পরিচালক খন্দকার মোর্শেদ মিল্লাত, নেদারল্যান্ড দূতাবাসের ফার্স্ট সেক্রেটারী ফলকার্ট ডি জেগার, ফিনিস মন্ডিয়াল প্রোগ্রামের চীফ অপারেটিং অফিসার নওরিয়া ওইবরাহিম, ফিনিস সোসাইটি ইন্ডিয়া’র সিনিয়র ম্যানেজার অভিষেক চৌধুরী,ইউরোপীয় ইউনিয়নের প্রতিনিধি মার্গেরিটা চাপালবি, পল্লী কর্ম সহায়ক ফাউন্ডেশনের সিনিয়র ইন্ডিপেন্ডেন্ট ভেরিফিকেশান কনসালট্যান্ট আজহার আলী প্রামানিক, ব্র্যাক ব্যাংকের ডেপুটি ম্যানেজিং ডিরেক্টও সৈয়দ আব্দুল মোমেন, বেসরকারী সংস্থ্া আশা’র প্রোগ্রাম ডিরেক্টর আবুল হাসনাত চৌধুরী, কোর্ডএইডের হেড অব প্রোগ্রাম আবুল কালাম আজাদ, আইডিএলসি ফিনান্স লিমিটেডের  জেনারেল ম্যানেজার মেজবাহ আহমেদ ও এনআরবিসি ব্যাংক এর উপ মহাব্যবস্থাপক মোঃ হারুনুর রশিদ ও ফিনিস মন্ডিয়ালের দেশীয় সমম্বয়কারী মাহবুল ইসলাম বক্তব্য রাখেন।

ফিনিস মন্ডিয়াল বাংলাদেশ প্রোগ্রামের ফিনান্সিয়াল ইনক্লুশান এডভাইজার ওয়াহিদা আনজুমের “স্যানিটেশন এন্ড ওয়্যাস্ট ভেলু চেইন ফিনান্সিং” বিষয়ে উপস্থাপনার উপর আলোচনা করতে গিয়ে বাংলাদেশ ব্যাংক এর সাসটেইনেবল ফিনান্স ডিপার্টমেন্টের পরিচালক খন্দকার মোর্শেদ মিল্লাত তার বক্তব্যে বলেন, বাংলাদেশ ব্যাংক ইতোমধ্যেই ওয়াশ ও বর্জ্য ব্যবস্থাপনা খাতে অর্থায়ন করতে নীতিমালা প্রনয়ণ করেছে। একই সাথে এ বিষয়ক স্কীমও তৈরী করা হয়েছে। তিনি এ বিষয়ে মাঠ পর্যায়ে তথ্য সরবরাহ ও স্থানীয় উদ্যোক্তাদের সচেতনতা বাড়ানোর উপর গুরুত্বারোপ করেন।

নেদারল্যান্ড দূতাবাসের ফার্স্ট সেক্রেটারী ফলকার্ট ডি জেগার বলেন, স্যানিটেশন সেক্টরে আর্থিক অন্তর্ভূক্তিকরনের কোন বিকল্প নেই। বেসরকারী উদ্যোক্তাদেরকে তিনি সম্ভাবনাময় এ খাতে বিনিয়োগ করার জন্য আহব্বান জানান।

ফিনিস মন্ডিয়াল প্রোগ্রামের চীফ অপারেটিং অফিসার নওরিয়া ওইবরাহিম  এ আয়োজনে অংশগ্রহনের জন্য সকলকে ধন্যবাদ জানান।

বেসরকারী সংস্থা ইকো সোস্যাল ডেভেলপমেন্ট অরগানাইজেশন- ইএসডিও এর নির্বাহী পরিচালক ডঃ মুহাম্মদ শহিদুজ্জামানের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত এ সভায় বাংলাদেশের বিভিন্ন বেসরকারী ব্যাংক, আর্থিক প্রতিষ্ঠান , ক্ষুদ্রঋণ প্রদানকারী সংস্থাও প্রাইভেট সেক্টরের প্রতিনিধিগণ  অংশগ্রহন করেন।

Share This Post
eskişehir escort - escort adana - bursa escort - escort izmit - escorteskişehir escort - escort adana - bursa escort - escort izmit - escort